শুক্রবার, মে ২৪, ২০২৪

দ্রুত খেলায় ফিরতে স্বাভাবিক প্রসব চেয়েছিলেন রাজিয়া

অস্ত্রোপচারে শিশুর জন্ম হলে দ্রুত খেলায় ফিরতে পারবেন না—এমন শঙ্কা ছিল তাঁর। খেললে টাকা, না খেললে শূন্য হাত। তাই দ্রুত খেলায় ফিরতে স্বাভাবিক প্রসব চেয়েছিলেন তিনি।

by ঢাকাবার্তা ডেস্ক
দ্রুত খেলায় ফিরতে স্বাভাবিক প্রসব চেয়েছিলেন রাজিয়া

খেলা ডেস্ক।।

সন্তান জন্মদানের পর আবার দ্রুত খেলায় ফিরতে চেয়েছিলেন সাফজয়ী নারী ফুটবলার রাজিয়া সুলতানা (২৪)। বড় ভাই ফজলুর রহমান ও মা আবিরন বিবির ভাষ্য, হাসপাতালে গেলেই অস্ত্রোপচারে শিশুর জন্ম (সিজারিয়ান সেকশন বা সি-সেকশন) দিতে হতে পারে—এ আশঙ্কায় রাজিয়া বাড়িতে প্রসব করাতে চেয়েছিলেন। অস্ত্রোপচারে শিশুর জন্ম হলে দ্রুত খেলায় ফিরতে পারবেন না—এমন শঙ্কা ছিল তাঁর। খেললে টাকা, না খেললে শূন্য হাত। তাই দ্রুত খেলায় ফিরতে স্বাভাবিক প্রসব চেয়েছিলেন তিনি।

দেশে সি-সেকশনের উচ্চহারের তথ্য বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর (বিবিএস) প্রতিবেদনেও উঠে এসেছে। বাংলাদেশ স্যাম্পল ভাইটাল স্ট্যাটিসটিকস ২০২২ অনুসারে, দেশে প্রতি পাঁচটির মধ্যে দুটির বেশি শিশুর জন্ম অস্ত্রোপচারে। এই হার ৪১ শতাংশের বেশি। খুলনা বিভাগে এই হার সর্বোচ্চ প্রায় ৫৮ শতাংশ।

অথচ বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (ডব্লিউএইচও) মতে, মা ও নবজাতকের জীবন বাঁচাতে ১০ থেকে ১৫ শতাংশ ক্ষেত্রে অস্ত্রোপচার গ্রহণযোগ্য। অর্থাৎ বাংলাদেশে অস্ত্রোপচারে শিশু জন্মের হার গ্রহণযোগ্য মাত্রার চেয়ে প্রায় তিন গুণ বেশি। রাজিয়ার বিষয়ে বাংলাদেশের ফুটবল অঙ্গনের লোকজনের সঙ্গে কথা বলতে গিয়ে জানা গেল, নারী ফুটবলারদের মা হওয়ার ক্ষেত্রে ন্যূনতম সুযোগ-সুবিধা নেই।

You may also like

প্রকাশক : জিয়াউল হায়দার তুহিন

সম্পাদক : হামীম কেফায়েত

গ্রেটার ঢাকা পাবলিকেশন
নিউমার্কেট সিটি কমপ্লেক্স
৪৪/১, রহিম স্কয়ার, নিউমার্কেট, ঢাকা ১২০৫

যোগাযোগ : +8801712813999

ইমেইল : news@dhakabarta.net